মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

অর্জনসমূহ

সাম্প্রতিক অর্জন (জেলা ঔষধ তত্ত্বাবধায়কের কার্যালয়)

রাজশাহী ঔষধ প্রশাসন অফিসের মূল লক্ষ্য মানসস্পন্ন,নিরাপদ ও কার্যকরী ঔষধ উৎপাদন, বিক্রয়, বিতরণ এবং ঔষধের যৌক্তিক ব্যবহার নিশ্চিত করা। বিগত ২০১৪ সাল হইতে জেলায় ১টি এ্যালোপ্যাথিক ও ২টি আয়ুর্বেদিক ঔষধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান স্থাপিত হইয়াছে। জেলায় স্থাপিত  ১টি এ্যালোপ্যাথিক ঔষধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান প্রায় ৪ লক্ষ্য ৫০ হাজার ইউ এস ডলার মূল্যের ৬৯ ধরনের ঔষধ রপ্তানী করিয়াছে। ৬টি বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানকে মডেল ফার্মেসী ও ৯টি বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানকে মডেল মেডিসিন শপে উন্নতিকরণ এবং ৫০টি নতুন বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানকে মডেল মেডিসিন শপের ড্রাগ লাইসেন্স প্রদান করা হইয়াছে। এছাড়া ৩৭২ টি খুচরা/পাইকারী ড্রাগ লাইসেন্স প্রদান করা হইয়াছে। অত্র অফিস এ সময়ে প্রায় ৭৮ লক্ষ্য টাকা রাজস্ব আদায় করিয়াছে। মোবাইল কোর্টে ১৯৫ টি মামলা দায়েরের মাধ্যমে প্রায় ১১ লক্ষ্য ৫০ হাজার টাকার জরিমানা আদায় হইয়াছে। বিগত ২ বছরে ১৭৭৫ টি লাইসেন্স নবায়ন,২৭৫০ টি ঔষধ বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠান এবং জিএমপি মোতাবেক ঔষধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান ১৪৭ বার পরিদর্শন করা হয়। ঔষধের মান যাচাইয়ের জন্য বাজার হতে ২৬৫ টি নমুনা সংগ্রহ পুর্বক টেষ্ট ল্যাবে প্রেরন করা হয়। ঔষধ উৎপাদনকারী/ বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানের সক্ষমতা বৃদ্ধিকরণের লক্ষ্যে ১৪টি ট্রেনিং/আলোচনা সভা করা হইয়াছে।

 

২০১৮-১৯ অর্থবছরের সম্ভাব্য প্রধান অর্জন সমূহ (জেলা ঔষধ তত্ত্বাবধায়কের কার্যালয়)

  • ১৬০০ টি ফার্মেসী পরিদর্শন
  • ৮০০ খুচরা/পাইকারী বিক্রয় ড্রাগ লাইসেন্স নবায়ন
  • ৮৬ বার জিএমপি মোতাবেক ঔষধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন
  • ঔষধের মান যাচাইয়ের জন্য বাজার হতে ৬০ টি নমুনা সংগ্রহ পুর্বক টেষ্ট ল্যাবে প্রেরন
  • আইনের যথাযথ প্রয়োগ নিশ্চিতকরণে জন্য মোবাইল কোর্টে ৫৬ টি মামলা দায়ের
  • ঔষধ উৎপাদনকারী/ বিক্রয়কারী প্রতিষ্ঠানের সক্ষমতা বৃদ্ধিকরণের লক্ষ্যে ট্রেনিং/আলোচনা সভা করা
  • প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে পোষ্টার/লিফলেট/বুকলেট/পুস্তিকা/সাময়িকী বিতরন ও প্রচার

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter